Breaking News
* গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে করোনায় কমেছে মৃত্যু, শনাক্ত নামল সোয়া লাখে * আওয়ামী লীগ কখনো পালায় না: শেখ হাসিনা * ১০ দফা আদায়ে ব্যর্থ হলে বাংলাদেশ ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত হবে: ফখরুল * মারা গেছেন পুলিশ কর্মকর্তার গুলিতে আহত ওড়িশার মন্ত্রী * তত্ত্বাবধায়ক সরকার নিয়ে বিশিষ্টজনদের কথা বলার আহ্বান মির্জা ফখরুলের * কারও ক্ষমতায় যাওয়ার সিঁড়ি হতে চাই না : ববি হাজ্জাজ * চলতি শিক্ষাবর্ষের মাধ্যমিক স্তরের পাঠ্যপুস্তক বাতিলের দাবি রেজাউল করিমের * বাংলাদেশের রাজনীতি নিয়ে অন্যদের বাড়াবাড়ি করার সুযোগ নেই: পররাষ্ট্রমন্ত্রী * সারদায় প্রশিক্ষণ সমাপনী কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী * অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে পেরুতে বাস খাদে, নিহত ২৪
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বাধিক আলোচিত

POOL

বিএনপি সুযোগ পেলে লাখ লাখ মানুষকে মেরে ফেলবে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল ক‌রিম।আপনি কি তাঁদের সাথে একমত?

Note : জরিপের ফলাফল দেখতে ভোট দিন

খাদে পড়ে থাকা ওসমানীনগর ছাত্রলীগকে কেউ টেনে তুলেনি কেউ

29-11-2022 | 02:08 pm
গ্রাম বাংলার খবর

সিলেটের তাজপুর কদমতলা ডাকবাংলায় জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক রাহেল সিরাজ ও মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নাঈম আহমদ উপজেলা ছাত্রলীগের পদ প্রত্যাশীদের কাছ থেকে জীবনবৃত্তান্ত গ্রহণ করেন।

সিলেট: কমিটি বিহীন ১৭ বছর হচ্ছে পার করেছে সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলা ও তাজপুর ডিগ্রী কলেজ ছাত্রলীগ। কমিটি না থাকায় আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী দুই চৌধুরীর বলয়ে বিভক্ত হয়েছিল এতো দিন। ছন্নছাড়া ক্ষমতাসীন ছাত্র সংগঠনটির নেতাকর্মীরা দলের চেয়ে নেতাদের জন্মদিনে কেক কাটা আর ফুলেল শুভেচ্ছা জানানোর মধ্যেই সীমাবদ্ধ ছিলেন।

ছাত্রত্বের সোনালী সময় পার করলেও তাদের নামের পাশে যুক্ত হয়নি পদ-পদবী। বঞ্চনার যন্ত্রণায় অনেকে হয়েছেন দেশান্তরী। আর যারা এলাকায় রয়েছেন, তারা নাম লিখিয়েছেন যুবলীগ-স্বেচ্ছাসেবক লীগে।

অথচ এ সময়ে জেলা ছাত্রলীগের তিনটি কমিটি হলেও খাদে পড়ে থাকা ওসমানীনগর ছাত্রলীগকে কেউ টেনে তুলেনি। ফলে দীর্ঘ ১৭ বছর কমিটি বিহীন থেকে যায় ওসমানীনগর উপজেলা ও কলেজ শাখা ছাত্রলীগ। আর উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ দুটি ইউনিটে কমিটি না হওয়ায় ছাত্রলীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে বলে অভিযোগ নেতাকর্মীদের।

অবশেষে গত বছরের শেষের দিকে ওই উপজেলার বাসিন্দা নাজমুল ইসলাম সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি হওয়ার পর নতুন কমিটির আশা জাগে। সভাপতি নাজমুল ও সাধারণ সম্পাদক রাহেল সিরাজ উদ্যোগ নেন উপজেলা কমিটি গঠনের। তাতে উজ্জীবিত হচ্ছে প্রবাসী অধ্যুষিত সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলা ছাত্রলীগ।

সাম্প্রতিক সময়ে উপজেলা ও কলেজ ছাত্র সংগঠনের সাংগঠনিক কার্যক্রম জোরদারে ভূমিকা নিয়েছে জেলা কমিটি। এরই মধ্যে পদ প্রত্যাশী শতাধিক নেতাকর্মীদের জীবনবৃত্তান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

গত রোববার (২৭ নভেম্বর) বিকেলে উপজেলার তাজপুর কদমতলা ডাকবাংলায় জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক রাহেল সিরাজ ও সিলেট মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নাঈম আহমদ উপজেলা ছাত্রলীগের পদ প্রত্যাশীদের কাছ থেকে জীবনবৃত্তান্ত গ্রহণ করেন।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল ইসলাম বলেন, পদ প্রত্যাশীদের জীবনবৃত্তান্ত সংগ্রহ করা হয়েছে। যাচাই বাছাই করে ত্যাগী নেতাদের হাতে ওসমানীনগর ও তাজপুর কলেজ ছাত্রলীগের দায়িত্ব অতি শিগগিরই দেওয়া হবে। দেশের উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে ছাত্রলীগকে ঘরে বসে থাকলে হবে না।

এ সময় বক্তারা বলেন, বঙ্গবন্ধুর হাতে গড়া ঐতিহ্যবাহী ছাত্রলীগ সব সময় ঐক্যবদ্ধ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন বাস্তবায়নে ছাত্রলীগ সব সময় মাঠে কাজ করছে। ওসমানীনগর উপজেলা ছাত্রলীগকে সু-সংগঠিত করতে এ উপজেলার দুই ইউনিটে কমিটি অনুমোদন করা হবে।

সংগঠনের নেতাকর্মীদের অনেকে জানান, গত ২০০২ সালে ফয়সাল আহমদ সুমনকে সভাপতি এবং রিংকু পালকে সাধারণ সম্পাদক করে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট থানা ছাত্রলীগের কমিটি গঠন হয়। কিছুদিন পর সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক স্থায়ীভাবে প্রবাসে চলে যান।

এরপর ২০০৫ সালে এই কমিটি ভেঙে দেওয়া হলে নেতৃত্ব শূন্য হয়ে পড়ে ওসমানীনগর থানা ছাত্রলীগ। এরপর দীর্ঘ ১৭ বছর অতিবাহিত হলেও ছাত্রলীগের কোন কমিটি গঠন করা হয়নি।

২০১৪ সালে পূর্ণাঙ্গ ভাবে ওসমানীনগর উপজেলা গঠন হলে উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি গঠনের জন্য দৌড়ঝাঁপ শুরু হয়। কিন্তু এ এখনও কমিটি হয়নি। পরবর্তীতে ২০১৭ সালে তৎকালীন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন ত্রাণ বিতরণে আসলে উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি গঠনের গুঞ্জনে ছাত্রলীগ নেতারা জোর লবিং ও দৌড়ঝাঁপ শুরু করেন। তখন ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে কিছুটা চাঙ্গা-ভাব লক্ষ্য করা গেলেও কমিটি গঠনের কোন উদ্যোগ পরিলক্ষিত না হওয়ায় আমেজে ভাটা পড়ে ছিল।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে কেন্দ্রীয় সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য সিলেট-৩ আসনের উপ-নির্বাচনী প্রচারণায় আসেন। তখন উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি গঠনের জন্য তাদের কাছে খোলা চিঠি প্রদান করা হয়। কিন্তু দীর্ঘ দিন অপেক্ষো করেও কোন সুফল মিলেনি।

কমেন্ট

<<1>>

নাম *

কমেন্ট *

সম্পর্কিত সংবাদ

© ২০১৬ | এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি | dainikprithibi.com
ডিজাইন এবং ডেভেলপমেন্ট - মোঃ রেজাউল ইসলাম রিমন