Breaking News
* 'দুর্নীতি করে কেউ যেন পার না পায়': রাষ্ট্রপতি * 'নিউইয়র্কের পথে হেলসিঙ্কি ত্যাগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী' * 'গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলনের দৃষ্টি আড়ালের ষড়যন্ত্র করছে সরকার' * 'কোনো দেশ না চাইলে জাতিসংঘ সহায়তা দিতে পারে না' * 'কাবুলে নারী কর্মীদের বাড়িতে থাকার নির্দেশ দিয়েছে তালেবান' * 'বিএনপি নতুন কৌশলে ষড়যন্ত্র শুরু করেছে': কাদের * 'বাংলাদেশ ব্যাংক দিয়ে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় অস্ত্র ব্যবহার করা হচ্ছে' * 'ই-কমার্স ব্যবসাকে আইনের আওতাভুক্ত করতে হবে': অ্যাটর্নি জেনারেল * '১১ সাংবাদিক নেতার ব্যাংক হিসাব তলবের প্রতিবাদে ২৩ সেপ্টেম্বর দেশব্যাপী বিক্ষোভ' * 'আওয়ামী লীগ ৪৩ জন ইউপি চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বাধিক আলোচিত
ইতিহাসের এই দিনে, ২০ সেপ্টেম্বর 'দ্বিতীয় দফায় সিরিজ বৈঠকে বসছে বিএনপির হাইকমান্ড' 'গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলনের দৃষ্টি আড়ালের ষড়যন্ত্র করছে সরকার' 'কোনো দেশ না চাইলে জাতিসংঘ সহায়তা দিতে পারে না' 'কাবুলে নারী কর্মীদের বাড়িতে থাকার নির্দেশ দিয়েছে তালেবান' 'নিউইয়র্কের পথে হেলসিঙ্কি ত্যাগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী' 'দুর্নীতি করে কেউ যেন পার না পায়': রাষ্ট্রপতি 'বাংলাদেশ ব্যাংক দিয়ে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় অস্ত্র ব্যবহার করা হচ্ছে' 'ই-কমার্স ব্যবসাকে আইনের আওতাভুক্ত করতে হবে': অ্যাটর্নি জেনারেল '১১ সাংবাদিক নেতার ব্যাংক হিসাব তলবের প্রতিবাদে ২৩ সেপ্টেম্বর দেশব্যাপী বিক্ষোভ'

POOL

বিচার ব্যবস্থার যত উন্নয়ন সব আওয়ামী লীগের সময়েই হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আপনি কি তাঁর সাথে একমত?

Note : জরিপের ফলাফল দেখতে ভোট দিন

'তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলায় খালাস পেয়েছেন সাংবাদিক প্রবীর সিকদার'

09-09-2021 | 02:01 pm
মিডিয়া

মন্ত্রীর ‘সুনাম ক্ষুণ্ণের’ অভিযোগে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলায় খালাস পেয়েছেন সাংবাদিক প্রবীর সিকদার।

ঢাকা: মন্ত্রীর ‘সুনাম ক্ষুণ্ণের’ অভিযোগে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলায় খালাস পেয়েছেন সাংবাদিক প্রবীর সিকদার।

ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেন বৃহস্পতিবার ছয় বছর আগের এই মামলার রায় ঘোষণা করেন।

রায়ের পর্যবেক্ষণে আদালত বলেছেন, যাদেরকে এ মামলায় ‘ভিকটিম’ বলা হয়েছে, তারা নিজেরা এ মামলা করেননি বা তাদের ঘনিষ্ঠ আত্মীয়স্বজন কেউ এ মামলার বাদী নন। এমনকি তারা এ মামলায় সাক্ষীও ছিলেন না। মামলা করেছেন দূরের একজন, যার এ অভিযোগে মামলা করার এখতিয়ার-ই নেই।

রায়ের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় প্রবীর সিকদার বলেন, ‘আমি ন্যায়বিচার পেয়েছি।’

এর আগে গত ২২ মার্চ রাষ্ট্র ও আসামিপক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে রায় ঘোষণার জন্য ১ এপ্রিল দিন ধার্য করেন আদালত। গত ১ এপ্রিল মামলার রায় প্রস্তুত না হওয়ার কারণে আদালত ১১ এপ্রিল দিন ধার্য করেন। এরপর কোভিড-১৯ এর ঊর্ধ্বগতির কারণে আদালতের বিচার কার্যক্রম বন্ধ থাকায় মামলাটির রায় আর হয়নি। তাই আদালতের কার্যক্রম স্বাভাবিক হওয়ায় মামলাটির রায় ঘোষণা করার জন্য ৯ সেপ্টেম্বর দিন ধার্য করেন।

২০১৫ সালে ১৬ আগস্ট সন্ধ্যায় রাজধানীর ইন্দিরা রোড থেকে প্রবীর সিকদারকে তুলে নিয়ে যায় গোয়েন্দা পুলিশ। সে রাতেই তাকে ফরিদপুর নিয়ে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় কোতোয়ালি থানায় মামলা করা হয়। ফরিদপুর জেলার এপিপি স্বপন পাল মামলাটি করেন। মামলায় অভিযোগ করা হয়, প্রবীর সিকদার ফেসবুকে লেখার মাধ্যমে মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেনের সুনাম ক্ষুণ্ন করেছেন।

এর পর ২০১৬ সালের ১৫ মার্চ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ফরিদপুর কোতোয়ালি থানার উপপরিদর্শক মো. মনির হোসেন তার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। ওই বছরের ৪ আগস্ট প্রবীর সিকদারের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন।

কমেন্ট

<<1>>

নাম *

কমেন্ট *

সম্পর্কিত সংবাদ

© ২০১৬ | এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি | dainikprithibi.com
ডিজাইন এবং ডেভেলপমেন্ট - মোঃ রেজাউল ইসলাম রিমন